বিএনপি’র আগুন সন্ত্রাসীদের বিরুদ্ধে প্রতিরোধ গড়ে তুলতে হবে: উপমন্ত্রী এনামুল হক শামীম এমপি (ভিডিও)

25

স্টাফ রিপোর্টার: পানি সম্পদ উপমন্ত্রী ও আওয়ামীলীগের সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক একেএম এনামুল হক শামীম এমপি বলেছেন, বিএনপি’র জন্ম হয়েছিলো হত্যা, গুম, সন্ত্রাস ও ষড়যন্ত্রের মধ্য দিয়ে। তাই তারা রাজনৈতিক চরিত্র হারিয়ে এখন সন্ত্রাসী সংগঠনে পরিণত হয়েছে। ক্ষমতায় থাকলে বিএনপি চেয়ারপার্সন বেগম খালেদা জিয়া ও তার ছেলে তারেক রহমান দেশের অর্থ বিদেশে পাচার করে, দেশটাকে লুটেপুটে খায়। আর ক্ষমতায় না থাকলে ও নির্বাচনে পরাজিত হয়ে পেট্টোল বোমা মেরে মানুষ হত্যা করে।তাই তারা আন্তর্জাতিকভাবে সন্ত্রাসী সংগঠনে পরিণত হয়েছে। পৃথিবীর কোথাও রাজনীতির জন্য, সরকার পরিবর্তনের জন্য এ ধরনের ঘটনা সমসাময়িক সময় ঘটেনি। তাই বিএনপি’র আগুন সন্ত্রাসীদের বিরুদ্ধে প্রতিরোধ গড়ে তুলতে হবে।

মুজিববর্ষ উপলক্ষ্যে রবিবার সকালে জাতীয় প্রেসক্লাবে আয়োজিত এক আলোচনা সভা ও মুক্তিযোদ্ধাদের সম্মাননা অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

সংগঠনের সভাপতি মাহবুব হোসেনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান বক্তা ছিলেন সাবেক ছাত্রনেতা ও আওয়ামীলীগ কেন্দ্রীয় উপ-কমিটির সদস্য ব্যারিস্টার জাকির আহাম্মদ।

বিশেষ অতিথি ছিলেন এডভোকেট নুরুল আমিন রুহুল এমপি, উম্মে ফাতেমা নাজমা এমপি, শেরেবাংলা কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক ভিসি প্রফেসর ড.কামাল উদ্দিন আহমেদ প্রমূখ।

তিনি আরও বলেন, বিএনপির সন্ত্রাসী কর্মকান্ড কোনভাবেই বরদাশত করা হবে না।  অতীতের ন্যায় আওয়ামী লীগ জনগণকে সঙ্গে নিয়ে এ ধরনের সন্ত্রাসী কর্মকান্ডের দাঁতভাঙ্গা জবাব দিতে প্রস্তুত। এখন বিএনপি কোন ধরনের গণতন্ত্র নিয়ম-কানুন ও বিধি-নিষেধ তোয়াক্কা না করে তাদের নাশকতামূলক চরিত্রকে আঁকড়ে ধরে রাখছে। রাজধানীতে বাসে আগুনের ঘটনা প্রমাণ করে বিএনপি তাদের চিরাচরিত সন্ত্রাসী পন্থা পরিহার করতে পারেনি। বিএনপি যদি এসব নাশকতামূলক কর্মকান্ড পরিহার না করে, তবে আওয়ামী লীগ তাদের বিরুদ্ধে দুর্বার প্রতিরোধ গড়ে তুলবে।

এনামুল হক শামীম বলেন, নির্বাচন সুষ্ঠু হবে তখন, যখন বিএনপিকে জেতার নিশ্চয়তা দেয়া হবে। বিএনপি জানে যে, বঙ্গবন্ধুকন্যা শেখ হাসিনার উন্নয়ন ও সঙ্কট মোকাবেলায় তার যে সাহসী নেতৃত্ব, বৈশ্বিক মহামারীতে অন্য দেশের তুলনায় আমরা অনেক ভাল আছি। শেখ হাসিনার মতো নেতৃত্ব আছে বলেই তার জনপ্রিয়তা অনেক বেড়ে গেছে।বিএনপি জানে জনগণের ভোটে তারা জিততে পারবে না।তাই নির্বাচনকে বিতর্কিত করতেই তারা নির্বাচনে অংশ নিয়েছে।

 

প্রধান বক্তার বক্তব্যে ব্যারিস্টার জাকির আহাম্মদ মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বাধীন বর্তমান উন্নয়নবান্ধব সরকারের বিরুদ্ধে যে কোনও ষড়যন্ত্র প্রতিরোধ করার জন্য প্রস্তত থাকতে বাংলার যুব সমাজের প্রতি উদাত্ত আহবান জানান।

 

ব্যারিস্টার জাকির আহাম্মদ আরও বলেন, বাংলাদেশ আজকের উন্নয়নের রোল মডেল। এ উন্নয়নকে বাধাগ্রস্ত করার জন্য সেই আগুন সন্ত্রাসীরা আবার সোচ্ছার হয়েছে। ষড়যন্ত্রের বেড়াজালের মাধ্যমে পিছনের ছিদ্রপথে,বাঁকা পথে সরকারকে উৎখাত করে আন্তর্জাতিক ষড়যন্ত্রকারীদের মাধ্যমে আইএসআই, দাউদ ইব্রাহীমের সহযোগিতায় শেখ হাসিনার সরকারকে উৎখাত করে যারা বিদেশে বসবাস করে বাংলাদেশের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্রে লিপ্ত হয়ে ক্ষমতায় যাওয়ার স্বপ্নে বিভোর তারা আজকে আগুন সন্ত্রাসে লিপ্ত হয়েছেন।

 

 

অনুষ্ঠানে কয়েকজন খ্যাতিমান মুক্তিযোদ্ধাকে সম্মাননা স্বারক ক্রেস্ট প্রদান করা হয়।