পর্তুগালে ওমিক্রনে আক্রান্ত ১৩ ফুটবলার, স্কটল্যান্ডে শনাক্ত ৬

2

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: করোনাভাইরাসের নতুন জাত ওমিক্রম ভেরিয়েন্টে আক্রান্ত ছয়জন রোগীর সন্ধান মিলেছে জানিয়েছেন স্কটল্যান্ড সরকার জানাচ্ছে। এদের মধ্যে চারজনের দেখা মিলেছে ল্যাঙ্কারশায়ার আর দুজন শনাক্ত হয়েছেন বৃহত্তম গ্লাসগো এলাকার ক্লাইডে-তে।

স্কটল্যান্ডের স্বাস্থ্য দপ্তর এবং স্থানীয় স্বাস্থ্য সুরক্ষা দলগুলো একসঙ্গে কাজ করছে। তারা ভাইরাসের উৎস এবং সাম্প্রতিক সপ্তাহগুলোতে আক্রান্তরা কাদের সংস্পর্শে এসেছে তা খুঁজে বের করতে মাঠে নেমেছে। সন্দেহভাজন ওমিক্রন আক্রান্তদের সব কাছের মানুষদের (টিকা দেওয়া থাকা সত্ত্বেও) সর্বনিম্ন ১০ দিনের আইসোলেশনে থাকার পরামর্শ দেওয়া হয়েছে।

স্কটল্যান্ডের স্বাস্থ্যমন্ত্রী হামজা ইউসুফ বলেন, নতুন ভেরিয়েন্টে আক্রান্ত ছয়জনের জন্য এটি একটি উদ্বেগজনক সময়। তাঁরা সবাই বিশেষজ্ঞদের সাহায্য ও সমর্থন পাবেন। ওমিক্রন সম্পর্কে এখনও অনেক কিছু জানা বাকি। এর তীব্রতা, সংক্রমণযোগ্যতা এবং চিকিৎসা বা ভ্যাকসিনগুলোর প্রতিক্রিয়া সম্পর্কে অনেক প্রশ্ন আছে। বিজ্ঞানীরা এটা নিয়ে বিস্তর কাজ শুরু করেছেন। আরো অনেক কিছু না জানা পর্যন্ত আমাদের অবশ্যই সতর্ক থাকতে হবে এবং সংক্রমণ ছড়ানোর ঝুঁকি কমানোর জন্য যথাসাধ্য চেষ্টা করতে হবে।

অস্ট্রেলিয়ায় তৃতীয় শনাক্ত
অস্ট্রেলিয়ান কর্তৃপক্ষ সোমবার করোনার ওমিক্রন ভেরিয়েন্টে আক্রান্ত তৃতীয় ব্যক্তির সন্ধান পেয়েছে। আর এ কারণে সরকার এ সপ্তাহে সীমান্ত বিধি-নিষেধ শিথিল করার পরিকল্পনা পুনর্বিবেচনা করছে।

গত বৃহস্পতিবার ৩০ বছর বয়সী একজন দক্ষিণ আফ্রিকান ব্যক্তি জোহানসবার্গ থেকে উত্তর অস্ট্রেলিয়ার শহর ডারউইনে বিমানযোগে যান। অস্ট্রেলিয়ার হাওয়ার্ড স্প্রিংসে অস্ট্রেলিয়ার সবচেয়ে নিরাপদ কোয়ারেন্টিন থাকা অবস্থায় তাঁর শরীরে ওমিক্রন ভেরিয়েন্টের অস্তিত্ব পাওয়া যায়। উত্তর অঞ্চলের স্বাস্থ্যমন্ত্রী নাতাশা ফাইলস এ তথ্য নিশ্চিত করেন।

নিউ সাউথ ওয়েলস রাজ্য কর্তৃপক্ষ রবিবার রিপোর্ট করেছে যে দক্ষিণ আফ্রিকা থেকে সিডনিতে দুজন ভ্রমণকারী অস্ট্রেলিয়ার প্রথম ওমিক্রন পজিটিভ শনাক্ত হয়েছে। দুজনই সম্পূর্ণ টিকাপ্রাপ্ত ছিলেন। তাদের কোনো লক্ষণ দেখা যায়নি এবং তারা সিডনিতে কোয়ারেন্টিনে ছিল। নিউ সাউথ ওয়েলসের প্রিমিয়ার ডমিনিক পেরোটেট সোমবার বলেন, এটি অস্ট্রেলিয়ার সবচেয়ে জনবহুল রাজ্যে তৃতীয় ওমিক্রন আক্রান্তের খবর।

ফুটবল দলে ১৩ জন ওমিক্রনে আক্রান্ত
করোনাভাইরাসের ওমিক্রন ভেরিয়েন্টের ১৩টি কেস শনাক্ত করেছে পর্তুগাল। ওই ১৩ জন বেলেনেনসেস এসএডি ফুটবল দলের খেলোয়াড়। তাঁদের মধ্যে একজন সম্প্রতি দক্ষিণ আফ্রিকা ভ্রমণ করেছিলেন। পর্তুগালের স্বাস্থ্য কর্তৃপক্ষ ডিজিএস আজ সোমবার বিষয়টি নিশ্চিত করেছে।
সূত্র : আরটিই, মেডিক্যাল এক্সপ্রেস, মেট্রো

আইএনবি/বিভূঁইয়া