ডিসেম্বর জুড়ে দেশে গ্যাস সংকটের শঙ্কা

2

আইএনবি ডেস্ক: সামিট গ্রুপের এলএনজি সরবরাহের ভাসমান টার্মিনাল ও পুনঃ গ্যাসে রূপান্তরকরণ ইউনিট (এফএসআরইউ) মুরিং লাইনের ক্যাবল ছিড়ে গেছে। এ কারণে আগামী দেড় মাস (১৫ জানুয়ারি) পর্যন্ত এলএনজি সরবরাহ করতে পারবে না ইউনিট টি।

পেট্রোবাংলা সূত্র জানিয়েছে, গত ১৮ নভেম্বর কোন এক সময় ত্রুটি ধরা পড়ে। এ কারণে টার্মিনালটিতে কার্গো ভিড়তে পারছে না। মেরামত না করা পর্যন্ত গ্যাস সরবরাহ বন্ধ থাকবে ভাড়া ভিত্তিক এই এফএসআরইউটি। ইউনিটটি সরবরাহ সক্ষমতা দৈনিক ৫শ মিলিয়ন ঘনফুট গ্যাস সরবরাহ করে আসছিল।

দেশীয় গ্যাসের সংকট সামাল দিতে বিদেশ থেকে এলএনজি আমদানি করতে দু’টি এফএসআরইউ ভাড়া করা হয়। এ রকম দুটি ইউনিট অপারেশনে ছিল। একটি বন্ধ হয়ে যাওয়ায় অপরটি দিয়ে ৫’শ থেকে ৫৬০ মিলিয়ন ঘনফুট গ্যাস সরবরাহ অব্যাহত থাকবে। দুটি ইউনিট দিয়ে সর্বোচ্চ সাড়ে ৯’শ মিলিয়ন ঘনফুট সরবরাহের রেকর্ড রয়েছে।

এমনিতেই গ্যাস সংকটে নাকাল অবস্থা। এ কারণে বিকেল ৫টা থাকে রাত ১০টা পর্যন্ত সিএনজি স্টেশনগুলো বন্ধ রাখা হচ্ছে। এফএসআরইউ বন্ধ হয়ে যাওয়ায় সংকট আরও বাড়তে পারে। প্রায় কমবেশী ৪ হাজার মিলিয়ন ঘনফুট গ্যাসের চাহিদা ধারণা করা হয়। এরমধ্যে কমবেশী ৩ হাজার মিলিয়ন ঘনফুট গ্যাস সরবরাহের রেকর্ড রয়েছে।

 

আইএনবি/বিভূঁইয়া