গোটা মুন্সীগঞ্জ শোকে স্তব্ধ , স্বজনদের হাতে ২২ মরদেহ,

2

মুন্সীগঞ্জ প্রতিনিধি: স্বজনদের আহাজারিতে ভারী হয়ে উঠছে মুন্সীগঞ্জের বাতাস। শীতলক্ষ্যায় লঞ্চডুবির ঘটনায় এক একটি লাশ আসার সাথে সাথেই পাড়া-মহল্লায় পরিজনহারাদের মাতম থামছে না। কেউ হারিয়েছেন মা, কেউ ভাই, কেউ বোন, কেউবা আবার স্বামী, সন্তান। ১ বছরের ছোট্ট শিশু আরিফার নিথর মরদেহও এসে পৌছেছে। স্বজনদের মাতম চলছে সদর উপজেলার মালপাড়া, মোল্লাকান্দি, দেওভোগ, চরকেওয়ার, দক্ষিণকোর্ট, দক্ষিণ চরমশুরা এলাকায়। নিহতদের দাহ-দাফন তৈরি হয়েছে হৃদয়বিদারক পরিস্থিতি।

মুন্সীগঞ্জ জেলা প্রশাসন সূত্রে জানা যায়, মঙ্গলবার দুপুর পর্যন্ত উদ্ধার হওয়া নিহত ৩৪ জনের মধ্যে ২২ জনের বাড়িই মুন্সিগঞ্জ সদর উপজেলায়।

বিষয়টি নিশ্চিত করেন অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) দীপক কুমার রায়। তিনি জানান, মুন্সীগঞ্জের নিহত ২২ জনের মধ্যে ১২ জন নারী, ৯ জন পুরুষ ও ১ বছরের মেয়ে, ১ শিশু রয়েছে। নিহত এই ২২ জনের সবার বাড়ি সদর উপজেলায়। তাদের প্রত্যাকের মরদেহ স্বজনদের কাছে পৌঁছে দেওয়া হয়েছে।

প্রঙ্গসত, রবিবার সন্ধ্যায় নারায়ণগঞ্জের মদনগঞ্জ কয়লাঘাট এলাকায় এসকে-৩ নামে একটি কার্গো জাহাজের ধাক্কায় ডুবে যায় এমএল সাবিত আল হাসান নামে লঞ্চটি। লঞ্চটিতে অধিকাংশ যাত্রীই ছিল মুন্সীগঞ্জের বাসিন্দা।

আইএনবি/বিভূঁইয়া