অন্তঃসত্ত্বা স্ত্রীকে হত্যার অভিযোগে স্বামী আটক

4

সাতক্ষীরা প্রতিনিধি:  সাতক্ষীরা সদরের লাবসা ইউনিয়নের রাজনগর গ্রামে সাত মাসের অন্তঃসত্ত্বা এক গৃহবধূকে শ্বাসরোধে হত্যার অভিযোগ উঠেছে এক ব্যক্তির বিরুদ্ধে। ঘটনার পর ক্ষুব্ধ গ্রামবাসী নিহতের স্বামীকে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করেছে।

নিহতের গৃহবধূর নাম পারভিন আক্তার (২৪)। ওই নারী সাতক্ষীরা সদরের রাজনগর গ্রামের জামাইপাড়ার আব্দুল খালেকের স্ত্রী ও একই গ্রামের আব্দুর রহিম ওরফে বাবুর মেয়ে।

জানা যায়, সম্প্রতি খালেক একই এলাকার এক নারীর সঙ্গে পরকীয়ায় জড়িয়ে পড়ে। এ নিয়ে এক সপ্তাহ ধরে খালেকের সঙ্গে পারভিনের বিরোধ চলে আসছিল। বিরোধের জেরে বুধবার ভোরে নির্যাতনের পর পারভিনকে শ্বাসরোধে হত্যা করে শরীরে কাঁথা চাপা দিয়ে বাইরের দিক থেকে দরজায় তালা লাগিয়ে ভাটপাড়ায় ইটভাটায় কাজ করতে যায় আব্দুল খালেক।

সাতক্ষীরা সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আসাদুজ্জামান বলেন, বুধবার দুপুরে পারভীন আক্তারের লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য সাতক্ষীরা সদর হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে। তাকে শ্বাসরোধ করে হত্যা করা হয়েছে বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে। জিজ্ঞাসাবাদের জন্য নিহতের স্বামী আব্দুল খালেককে আটক করা হয়েছে।

আইএনবি/বিভূঁইয়া